যেসব খাবার হার্ট ভালো রাখবে

অনলাইন ডেস্ক ঃ

শরীরের অঙ্গ-প্রত্যঙ্গের মধ্যে হৃৎপিণ্ড বা হার্টকে নিয়েই ভাবনা থাকে বেশি। হার্ট বিকল হলে নেমে আসে মহাবিপর্যয়। এই রোগে আক্রান্ত হয়ে প্রতিবছর ১ কোটি ৭৩ লাখ মানুষের মৃত্যু হয়। হৃদরোগকে চিহ্নিত করা হয়েছে বিশ্বের এক নম্বর ঘাতকব্যাধি হিসেবে। শরীরের সুস্থতার জন্য হার্টের যত্ন নেয়াটা খুবই জরুরি। অন্যান্য নিয়মের সঙ্গে হার্টকে ভালো রাখার জন্য গ্রহণ করা যেতে পারে কিছু সুস্বাদু খাবার। চলুন জেনে নেয়া যাক খাবারগুলো সম্পর্কে।

কমলালেবু

হার্টকে ভালো রাখার জন্য গ্রহণ করা যেতে পারে কমলালেবু। কারণ কমলালেবুতে থাকা পেক্টিন হার্টের ক্ষতিকারক গ্ল্যাকটিন-৩ প্রোটিনের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে।

সূর্যমুখীর বীজ

রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে আঁশ। তাই আঁশযুক্ত খাবার গ্রহণের মাধ্যমে হার্ট রোগের ঝুঁকি কমানো সম্ভব। এ বিবেচনায় উত্তম খাবার সূর্যমুখীর বীজ। এই বীজে প্রচুর ওমেগা থ্রি ফ্যাটি এসিড এবং আঁশ রয়েছে যা হার্টের জন্য উপকারী।

পপকর্ন

সিনেমা দেখতে বসে বা পার্কে সময় কাটাতে গিয়ে অনেকেরই পছন্দের তালিকার প্রথম দিকে পপকর্নের অবস্থান। পপকর্ন অর্থাৎ ভুট্টায় পর্যাপ্ত মাত্রায় পলিফেনলস আছে এবং এটি এক ধরনের অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যা হার্টের জন্য ভালো।

মধু

সকল রোগের মহৌষধ বলে বিবেচিত মধু হার্টের জন্য খুবই উপকারী। পুষ্টিবিদ ক্রিস্টেন হেলে বলেছেন, মধু প্রাকৃতিক চিনি। এটা হৃৎপিণ্ডের জন্য ভীষণ উপকারী। মধু হৃৎপিণ্ডে কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে ভূমিকা রাখে।

ডাল

ফিটনেস ট্রেইনার জোয়েল হারপার এর মতে, সবধরনের ডাল হৃৎপিণ্ডের জন্য ভালো। এগুলোতে আছে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড, আছে আঁশ। এছাড়া ক্যালসিয়ামও রয়েছে প্রচুর পরিমাণে।

ডিম

স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ অলি সাপিরো বলেছেন, ডিমের হলুদ অংশে ভিটামিন কে-২ রয়েছে, যা হৃৎপিণ্ডে ট্রাফিক পুলিশের মতো কাজ করে। এটি খেলে ধমনীর দেয়াল শক্ত হয় না।

ডার্ক চকলেট

যারা চকলেট পছন্দ করেন, তাদের জন্য আনন্দের বিষয় এই চলকেটও হার্টের জন্য বেশ উপকারী। স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ ডক্টর ন্যান্সি স্নাইড্যার্মা বলেছেন, ডার্ক চকলেটে আছে ফ্ল্যাবিনয়েড, যা কার্ডিওভাসকুলার রোগ থেকে রক্ষা করে, তবে অতিরিক্ত ডার্ক চকলেট খাওয়া ভালো নয়।

কফি

সকালে ঘুম থেকে উঠে হোক বা দিনের শেষে বিকেলে হালকা নাস্তার সময়ে কিংবা বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডায় নিজেকে রিফ্রেশ করতে এক কাপ কফির বিকল্প কেউ কেউ ভাবতেই পারেন না। চিকিৎসকদের মতে, দিনে দুই কাপ কফি আপনার হৃৎপিণ্ডকে সব রোগ থেকে দূরে রাখতে সাহায্য করে। সূত্র: ডয়চে ভেলে

Loading...
Share via
Copy link
Powered by Social Snap